বাংলাদেশ সোমবার 18, February 2019 - ৬, ফাল্গুন, ১৪২৫ বাংলা

প্রেমের টানে ঘর ছেড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন ফাতেমা ! 

অনলাইন ডেস্ক: | প্রকাশিত ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৪:৫৮:১০

জামিল ও প্রিয়াঙ্কা। একজন হিন্দু অপরজন মুসলিম। প্রিয়াঙ্কা রানী গোলাপগঞ্জ উপজেলার ফুলবাড়ি ইউনিয়নের দক্ষিণভাগ গ্রামের সদয় রাম দাশের ছোট মেয়ে। সিলেটের মদন মোহন কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের বিবিএ ৩য় বর্ষের ছাত্রী। জামিল আহমদ জকিগঞ্জ উপজেলার মানিকপুর ইউনিয়নের সিরাজপুর গ্রামের মৃত কুতুব উদ্দিনের ছেলে। পেশায় রং ও টাইলস মিস্ত্রি। জামিল ও প্রিয়াঙ্কা তাদের কেউ কাউকে চিনতো না। রং নাম্বারের মাধ্যমে প্রথম পরিচয় তাদের। মোবাইলে আলাপের মাধ্যমে তাদের মধ্যে ধীরে ধীরে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। প্রেম মানে না জাত ধর্ম। দুই ধর্মের দুই জন। তাতে কী? টানা চার মাস চলে তাদের মন দেয়া-নেয়া। গভীর হতে থাকে তাদের প্রেম। প্রেমের টানে জামিল জকিগঞ্জ থেকে প্রিয়াঙ্কার সাথে দেখা করতে আসতো। এক পর্যায়ে তারা সিদ্ধান্ত নেয় প্রেমকে পাকাপোক্ত করার। এজন্য সিদ্ধান্ত নেয় বিয়ের। যেই ভাবনা সেই কাজ। গত ২৮ আগস্ট রবিবার কলেজে যাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হয় প্রিয়াঙ্কা জামিলকে বিয়ে করবে বলে।

জামিলের হাত ধরে সে চলে আসে সিলেট নগরীর টিলাগড়ে। সেখানে জামিলের খালার বাসায় আশ্রয় নেয়। জামিলকে বিয়ে করতে সিদ্ধান্ত নেয় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করবে। পরে সে ৩০ আগস্ট সিলেটের আদালতে এফিডেভিটের মাধ্যমে ইসলামের ছায়া তলে আশ্রয় গ্রহণ করে। প্রিয়াংকা থেকে হয়ে যায় ফাতেমা। সেদিন জামিল ও ফাতেমা পবিত্র বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়। জামিল ফাতেমাকে ২ লক্ষ টাকার মোহরানা দিয়ে বিয়ে করে । তখন এই প্রেমিক যুগলের আইনজীবী ছিলেন এডভোকেট মুহিবুর রহমান। এদিকে প্রিয়াঙ্কা ওরফে ফাতেমার পিতা সদয় রাম দাশ মেয়েকে অনেক স্থানে খোঁজাখুঁজি করে না পেলে ৪ সেপ্টেম্বর গোলাপগঞ্জ মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। মডেল থানা পুলিশ প্রিয়াঙ্কা ও জামিলের মোবাইল নাম্বার নিয়ে অনুসন্ধানে নামে।
অনুসন্ধানের এক পর্যায়ে জামিলের খালার বাসা থেকে তাদের আটক করে নিয়ে আসা হয় গোলাপগঞ্জ থানায়। উভয়ের বাড়িতে খবর দেওয়া হলে জামিল ও প্রিয়াঙ্কার পরিবারের লোকজন ছুটে আসে গোলাপগঞ্জ থানায়। প্রিয়াঙ্কার পরিবারের লোকজন অনেক অনুনয় বিনয় করে তাকে বাড়ি ফেরার জন্য। কিন্তু প্রিয়াঙ্কা নাছোড়বান্দা। সে বাড়ি ফিরবে না, ইসলামের ছায়া তলে সারাজীবন কাটাতে চায়। সে ইসলামকে ছাড়বেই না, জামিলকেও ছাড়তে রাজি নয়। গোলাপগঞ্জ মডেল থানার ওসি একে এম ফজলুল হক শিবলী তাদেরকে পৃথকভাবে জিজ্ঞেসও করেছিলেন একসাথে থাকতে চায় কিনা তারা। তাদের দু’জনের একই উত্তর। আমরা প্রাপ্ত বয়স্ক। বৈধভাবে আমরা বিবাহ করেছি। পৃথক হওয়ার প্রশ্নই আসেনা। এমনকি ফাতেমাকে জোরপূর্বক পিতার সঙ্গে দিলে সে আত্মহত্যারও হুমকি দেয়। প্রায় ৪ ঘন্টা ব্যাপী চলে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ। তাদের এই প্রেমে সবাই হতবাক। এক পর্যায়ে থানার ওসি ফাতেমাকে জামিলের জিম্মায় ছেড়ে দেন। প্রেমের টানে ফাতেমার এত বড় ত্যাগ । এ নিয়ে উপজেলা জুড়ে তুলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন


এ সম্পর্কিত খবর

ইসি দাবি করলেই সুষ্ঠু নির্বাচন হবে, এমন কথা নেই : মাহবুব তালুকদার

ইসি দাবি করলেই সুষ্ঠু নির্বাচন হবে, এমন কথা নেই : মাহবুব তালুকদার

 একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সম্পর্কে নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার বলেছেন, ‘নির্বাচন কমিশন (ইসি) সুষ্ঠু নির্বাচনের

পানিতে জ্বলছে আগুন, কৌতূহলী গ্রামবাসীর ভিড়

পানিতে জ্বলছে আগুন, কৌতূহলী গ্রামবাসীর ভিড়

: বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের বড়ইতলা গ্রামের ইরি ধানক্ষেতের সেচ পাম্পের শ্যালো মেশিনের পাইপ

বইমেলায় থাকবে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা : ডিএমপি কমিশনার

বইমেলায় থাকবে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা : ডিএমপি কমিশনার

 ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া বলেছেন, একুশে বইমেলায় সুদৃঢ়, সম্মিলিত ও নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা


মা-ছেলে হত্যা : তিন আসামির বিচার শুরু

মা-ছেলে হত্যা : তিন আসামির বিচার শুরু

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর কাকরাইলে মা ও ছেলেকে হত্যার ঘটনায় দায়ের করা মামলায় তিনজনের বিরুদ্ধে

অ্যাক্রেডিটেশন সনদ পেল ১৫ প্রতিষ্ঠান

অ্যাক্রেডিটেশন সনদ পেল ১৫ প্রতিষ্ঠান

 টেস্টিং ল্যাবরেটরি ও ইন্সপেকশন প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ অ্যাক্রেডিটেশন বোর্ডের (বিএবি) সনদ পেল দেশীয় ও বহুজাতিক ১৫টি

প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব হলেন শাখাওয়াত মুন

প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব হলেন শাখাওয়াত মুন

স্টাফ রিপোর্টার : প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব পদে নিয়োগ পেয়েছেন কে এম শাখাওয়াত মুন। বৃহস্পতিবার জনপ্রশাসন


দেশে চার লেনে উন্নীত হওয়া মহাসড়কের সংখ্যা ৬টি, দৈর্ঘ্য ৪৭০ কিলোমিটার

দেশে চার লেনে উন্নীত হওয়া মহাসড়কের সংখ্যা ৬টি, দৈর্ঘ্য ৪৭০ কিলোমিটার

 গত ১০ বছরে (২০০৯ থেকে জুন ২০১৮ পর্যন্ত) সড়ক ও জনপথ অধিদফতর উন্নয়ন খাতের আওতায়

বিসিএস ও ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস করতো যারা

বিসিএস ও ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস করতো যারা

স্টাফ রিপোর্টার : ডিজিটাল জালিয়াতি ও প্রেস থেকে প্রশ্নপত্র ফাঁসের সঙ্গে জড়িত মূলহোতাসহ ৪৬ জনকে

নাগরিকদের অধিকার নিশ্চিত করাই আমাদের লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

নাগরিকদের অধিকার নিশ্চিত করাই আমাদের লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার : এদেশে সব নাগরিকের সমান অধিকার রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।



আরো সংবাদ










সিলেট মাদানী কাফেলার মানববন্ধন

সিলেট মাদানী কাফেলার মানববন্ধন

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৭:৩৭




ব্রেকিং নিউজ