বাংলাদেশ শুক্রবার 16, November 2018 - ২, অগ্রাহায়ণ, ১৪২৫ বাংলা

ভুল বার্তায় ৩৭২ বাংলাদেশির মিয়ানমারে অনুপ্রবেশ

১৬ অক্টোবর, ২০১৮ ১৯:৩২:৩০

মুসলিম রোহিঙ্গারা প্রবেশ করায় অচিরেই ভিন্ন ধর্মাবলম্বী নৃগোষ্ঠীদের বাংলাদেশ ছাড়তে হবে-এমন ভুল বার্তায় ২০১৭ সালের নভেম্বর থেকে প্রায় ৩৭২ জন বাংলাদেশি মিয়ানমারে অনুপ্রবেশ করে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

২০১৭ সালের আগস্টের শেষ সপ্তাহ থেকে মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর নির্যাতনে বিরাট সংখ্যক রোহিঙ্গা মুসলিম জনগোষ্ঠী বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করতে থাকে। ঠিক সেই সময়ে বাংলাদেশের সীমান্ত এলাকার ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর মাঝে এ ধরনের ভুল বার্তা যায়। রোহিঙ্গাদের উপর যে ধরনের হামলা চলছিল সে ধরনের হামলা তাদের উপর আসতে পারে বলেও আশঙ্কা ছিল তাদের।

বিষয়টি নিশ্চিত করে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্তা  বলেন, বাংলাদেশি বিভিন্ন ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর ৩৭২ জনের প্রায় ৮৩টি পরিবার রোহিঙ্গা সংকটের সময় মিয়ানমারে অনুপ্রবেশ করে। তারা বর্তমানে দেশটিতে কারাবন্দি রয়েছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এদের তালিকা দেয়া হয়েছে নাগরিকত্ব যাচাইয়ের জন্য। যাচাইয়ের ফলে পরিচয় নিশ্চিত হলে তাদের ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করা হবে।

‘মুসলিম রোহিঙ্গারা বাংলাদেশে আসায় অচিরেই তাদের বাংলাদেশ ছাড়তে হবে- এমন একটি ভুল বার্তা সেসময় বাংলাদেশের এসব ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর মাঝে যায়। ফলে আগে থেকেই প্রস্তুতি নিয়ে এ পরিবারগুলো মিয়ানমারে চলে যায়,’ বলেন ওই কর্মকর্তা।

জানা যায়, এই ৩৭২ জন বাংলাদেশির মিয়ানমারের সীমানায় অনুপ্রবেশের কথা এ বছরের জুলাই মাসে কূটনৈতিক পত্র বা নোট ভারবাল দিয়ে বাংলাদেশকে জানায় মিয়ানমারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

বিষয়টির সত্যতা যাচাই করতে দেশটিতে অবস্থিত বাংলাদেশ মিশন ৪ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল গত ২ আগস্ট মংডু সফর করে। সফর শেষে প্রতিনিধি দলটি বাংলাদেশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একটি প্রতিবেদন পাঠায়। প্রতিবেদনে তাদের নাগরিকত্ত্ব যাচাই করে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, মিয়ানমারের নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশে যখন রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশ ঘটছিল, তখন মানবিক দিক বিবেচনায় তাদের জন্য সীমান্ত খুলে দেয় বাংলাদেশ। সীমান্তে ঢিলেঢালা নজরদারির সুবাদে বাংলাদেশিদের অনেকে মিয়ানমারে অনুপ্রবেশ করেছে।

প্রান্তিক পর্যায়ের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর এসকল বাংলাদেশির মধ্যে বার্তা পৌঁছেছে, মুসলিম রোহিঙ্গারা বাংলাদেশে আসায় বাংলাদেশের ভিন্ন ধর্মী ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীদের মিয়ানমারে চলে যেতে হবে। ফলে অনেকেই অভিবাসনের উদ্দেশ্যে পরিবারসহ মিয়ানমারে পাড়ি জমিয়েছে।

সূত্র জানায়, মিয়ানমারের জেলে বন্দি এসব বাংলাদেশিদের দ্রুত মুক্তির সম্ভাবনা কম। কারণ, এদের নাগরিকত্ব যাচাই একটি লম্বা প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যাবে।

বিশ্লেষকেদের মতে, রোহিঙ্গা সংকটের শুরুর দিকে বাংলাদেশসহ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় রোহিঙ্গাদের প্রাথমিক আশ্রয়স্থল তৈরি, খাদ্য, সেবা, চিকিৎসাসহ অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা তৈরিতে যে পদক্ষেপগুলো নিয়েছিল তা এ অঞ্চলের মানুষেরা পায়নি। এরফলেই এক ধরনের দ্বিধায় পরে যায় তারা। আর এ কারণেই রোহিঙ্গা সংকটের মধ্যেও কিছু বাংলাদেশি মিয়ানমারে চলে যায়।

বাংলাদেশে এখন পুরাতন ও নতুন মিলিয়ে ১০ লাখের বেশি রোহিঙ্গা অবস্থান করছে। ২০১৭ সালের ২৩ নভেম্বর দু’দেশের মধ্যে স্বাক্ষরিত ‘অ্যাগ্রিমেন্ট অন রিটার্ন অব ডিসপ্লেস পার্সন ফর্ম রাখাইন স্টেট’ চুক্তি অনুয়ায়ী এ বছরের ২৩ জানুয়ারি থেকে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেয়া শুরুর কথা। কিন্তু এখন পর্যন্ত একজন রোহিঙ্গাও ফিরিয়ে নেয়নি মিয়ানমার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সম্প্রতি জাতিসংঘে দেওয়া ভাষণে বলেন, রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন বিষয়ে মিয়ানমার কথা দিলেও তা রাখছে না।

সম্প্রতি জাতিসংঘের প্রকাশিত প্রতিবেদনেও তুলে ধরা হয় যে, মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের এখনো সহায়ক পরিবেশ সৃষ্টি হয়নি। এছাড়া উত্তর রাখাইনে মিয়ানমারের সেনাবাহিনী গণহত্যার ভীতি কাটিয়ে ওঠার আগেই সেখানে আরো সেনা সদস্য মোতায়েন চালিয়ে যাচ্ছে দেশটি।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন


এ সম্পর্কিত খবর

প্রশাসনের কর্মকর্তাদের ইসিকে সহযোগিতার নির্দেশনা

প্রশাসনের কর্মকর্তাদের ইসিকে সহযোগিতার নির্দেশনা

প্রশাসনের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীকে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ করার লক্ষ্যে নির্বাচন কমিশনকে

যে কারণে এবার বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে ভারত নীরব

যে কারণে এবার বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে ভারত নীরব

 ২০১৪-র ৫ জানুয়ারির বিতর্কিত নির্বাচনকে যে দেশটি আগাগোড়া জোরালো সমর্থন জানিয়ে এসেছিল, সেটি ছিল ভারত।

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন স্থগিত

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন স্থগিত

মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলের রাখাইনে ফিরে না যাওয়ার দাবিতে কক্সবাজারে শরণার্থী শিবিরে বিক্ষোভ করেছে হাজার হাজার রোহিঙ্গা।


একজন রোহিঙ্গাও ফিরতে না চাওয়ায় প্রত্যাবাসন অনিশ্চিত

একজন রোহিঙ্গাও ফিরতে না চাওয়ায় প্রত্যাবাসন অনিশ্চিত

 বৃহস্পতিবার রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া শুরুর কর্মসূচি শেষ মূহুর্তে এসে গভীর অনিশ্চয়তায় পড়েছে। যে ৫০টি রোহিঙ্গা

যুক্তরাষ্ট্রও রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের বিরোধী

যুক্তরাষ্ট্রও রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের বিরোধী

আগামীকাল থেকেই শুরু হচ্ছে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া। ইতোমধ্যেই রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের প্রস্তুতি নিয়েছে মিয়ানমার। দেশটির কর্মকর্তারা

সাধারণ এক নারী থেকে অসাধারণ শেখ হাসিনার গল্প

সাধারণ এক নারী থেকে অসাধারণ শেখ হাসিনার গল্প

‘হাসিনা- এ ডটার’স টেল’ শিরোনামের ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে আগামী ১৬ নভেম্বর। ছবিটি এরইমধ্যে আলোচনা তৈরি


প্রত্যাবাসনে প্রস্তুত বাংলাদেশ, ফিরতে চায় না রোহিঙ্গারা

প্রত্যাবাসনে প্রস্তুত বাংলাদেশ, ফিরতে চায় না রোহিঙ্গারা

নাগরিকত্ব, নিজ জমিতে ফেরা ও নিরাপত্তা নিশ্চিত না হওয়ার অজুহাত দেখিয়ে রোহিঙ্গারা নিজ দেশ মিয়ানমারে

অ্যামনেস্টির দেওয়া ‘অ্যাম্বাসাডর অফ কনশেন্স’ খেতাব হারালেন সু চি

অ্যামনেস্টির দেওয়া ‘অ্যাম্বাসাডর অফ কনশেন্স’ খেতাব হারালেন সু চি

 মানবাধিকার বিষয়ক আন্তর্জাতিক সংগঠন অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল মায়ানমারের নেত্রী অং সান সু চি’কে দেওয়া তাদের সর্বোচ্চ

রাজনৈতিক কারণে কাউকে গ্রেফতার না করার নির্দেশ

রাজনৈতিক কারণে কাউকে গ্রেফতার না করার নির্দেশ

পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত রাজনৈতিক কারণে কাউকে গ্রেফতার না করার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে পুলিশকে।



আরো সংবাদ

গাজীপুরে মিলল ৯ জনের লাশ

গাজীপুরে মিলল ৯ জনের লাশ

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ২১:০৬




রংপুরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

রংপুরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

১২ নভেম্বর, ২০১৮ ১০:৫৪

চাঁদা চেয়ে বরখাস্ত হলেন এসআই

চাঁদা চেয়ে বরখাস্ত হলেন এসআই

১০ নভেম্বর, ২০১৮ ১৫:২৫








ব্রেকিং নিউজ

আটকের পর ছাড়া পেলেন বেবী নাজনীন

আটকের পর ছাড়া পেলেন বেবী নাজনীন

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ২১:১১


গাজীপুরে মিলল ৯ জনের লাশ

গাজীপুরে মিলল ৯ জনের লাশ

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ২১:০৬






রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন স্থগিত

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন স্থগিত

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ১৬:৫৪

ভোট আর পেছাচ্ছে না

ভোট আর পেছাচ্ছে না

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ১৬:৫০