বাংলাদেশ রবিবার 17, February 2019 - ৫, ফাল্গুন, ১৪২৫ বাংলা

মাদকের গডফাদার গোলাম ফারুক স্ত্রীসহ গ্রেপ্তার

২৭ নভেম্বর, ২০১৮ ১৭:৫৬:৩৮

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা থানায় দায়ের করা মাদক ও মানি লন্ডারিংসহ আট মামলার আসামি গোলাম ফারুককে গ্রেপ্তার করেছে সিআইডির অর্গানাইজড টিমের সদস্যরা। এ সময় তার স্ত্রী আফরোজা আক্তার ওরফে এ্যানীকেও গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তার গোলাম ফারুক ‘মাদকের গডফাদার’ এবং ‘অস্ত্র ব্যবসার ডিলার’ বলে দাবি সিআইডির।

 

গতকাল সোমবার রাত থেকে আজ মঙ্গলবার ভোর পর্যন্ত রাজধানীর বাড্ডা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করে সিআইডি। দুপুরে মালিবাগে সিআইডির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার মোল্লা নজরুল ইসলাম।

 

তিনি জানান, ২০১৭ সালে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা থানায় একটি মাদকের মামলা দায়ের করা হয়েছিল। সেই মামলার সূত্র ধরে তদন্ত করতে গিয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত ইয়াবা ব্যবসায়ী নুরুল হক ভুট্টো, তার বড় ভাই, ভাগ্নে এবং বিকাশ এজেন্টসহ ১৭ জনের নামে ২০১৭ সালের ২৯ আগস্ট টেকনাফ থানায় একটি মানি লন্ডারিংয়ের মামলা করা হয়েছিল। ওই মামলায় গোলাম ফারুক ও তার স্ত্রীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামলায় এখন পর্যন্ত বিভিন্ন সময়ে ৩৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

 

ব্রিফিংয়ে গ্রেপ্তারকৃত মাদক ব্যবসায়ী ফারক ও তার স্ত্রীর শত কোটি টাকার মালিক হওয়ার গল্প তুলে ধরে মোল্লা নজরুল ইসলাম গোলাম জানান, গোলাম ফারুক ও তার স্ত্রী এক সময় চাঁপাইনবাবগঞ্জের একটি গ্রামে থাকতেন। তারা আর্থিকভাবে স্বচ্ছল ছিলেন না। কিন্তু স্বামী-স্ত্রী ২০০৯ সালে শূণ্য হাতে রাজশাহী থেকে ঢাকায় আসেন। পরে ঢাকার গাজীপুরে একটি গ্রুপের সঙ্গে তাদের পরিচয় হয়। সেই পরিচয়ের সূত্র ধরে তারা অস্ত্র ব্যবসা শুরু করেন। এর পাশাপাশি তারা একটি গার্মেন্টস ব্যবসা খুলে বসেন। এর কিছুদিন পর ফারুক ও তার স্ত্রী ইয়াবা ব্যবসায় জড়িয়ে পড়েন। তারা প্রথমে টেকনাফের ইয়াবা ব্যবসায়ী নুরুল হক ভূট্টোর চাচা গুড়া মিয়ার কাছ থেকে ইয়াবা এনে ব্যবসা করতেন। পরে এই গোলাম ফারুক নুরুল হক ভুট্টো এবং তার বড় ভাই নুর মোহাম্মদের কাছ থেকে ইয়াবা এনে ব্যবসা করতে থাকেন। ইয়াবা টাকায় গোলাম ফারুক শত কোটি টাকার মালিক বনে যান।

 

নজরুল ইসলাম বলেন, ‘গোলাম ফারুক এই মাদকের টাকায় সম্পদের পাহার গড়ে তুলেছেন। তিনি এলেজা ইক্সেপোর্ট ইন্টারন্যাশনাল নামে একটি মেশিনারি ফ্যাক্টরি গড়ে তোলেন। যাতে তার প্রায় এক কোটি টাকার বিনিয়োগ আছে। এছাড়াও তার এবং স্ত্রীর নামে বিভিন্ন ব্যাংকে নামে বেনামে অনেক টাকা সে রেখেছে। আবার এই টাকা দিয়ে তারা স্বামী-স্ত্রী বাড়ি, জমি, মাইক্রোবাস কিনেছে। আমরা তদন্ত করতে গিয়ে দেখেছি ফারুকের নামে ডিএমপির তেজগাঁও, উত্তরা পূর্ব থানা, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা সদর থানা এবং একই জেলার শিবগঞ্জ থানাসহ বিভিন্ন থানায় আটটি মাদকের মামলা রয়েছে।’

 

তদন্তকালে তাদের শত কোটি টাকার সম্পদের সন্ধান পাওয়া গেছে। এই সম্পদ শিগগিরই বাজেয়াপ্ত করে সরকারি কোষাগারে জমা করার ব্যবস্থা করা হবে বলেও জানান সিআইডির এ কর্মকর্তা। তিনি আরও জানান, গোলাম ফারুক ও তার স্ত্রী গ্রেপ্তারের আগে মাদকের গডফাদার নুরুল হক ভুট্টোর সাথে অর্থনৈতিক লেনদেনের সূত্র ধরে মিরপুর থেকে আরেক মাদক ব্যবসায়ী আফজাল হোসেন ইমন ও তার স্ত্রী সানিয়া আফরোজ ও ছেলে সালাউদ্দিন প্রিন্সকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। পরে নুরুলের বড় ভাই নুর মোহাম্মদের সঙ্গে অর্থনৈতিক লেনদেনের সূত্র ধরে মিরপুর বিহারিক্যাম্পের মাদক সম্রাজ্ঞী রুপা ইসলাম ও তার স্বামী আল আমিন, সহযোগী রিয়াজ, ফয়সাল এবং বিকাশের এজেন্ট জনি ও কুদ্দুসকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। পর্যায়ক্রমে নরসিংদী থেকে মাদকের ডিলার রায়হান, আসাদুজ্জামান, স্বপন, কেরানীগঞ্জের বিকাশ এজেন্ট আব্বাস, টঙ্গীর মাদক সম্রাজ্ঞী রানী, তার সহযোগী নাইম, ইব্রাহিম, বিকাশ এজেন্ট শাহজালাল, নাসির উদ্দিন সোহেলকে গ্রেপ্তার করা হয়।’

 

এছাড়াও নুরুল হক ভুট্টোর সঙ্গে অর্থনেতিক লেনদেনের সূত্র ধরে ব্রাক্ষণবাড়িয়ার মুসা মিয়া, জয়পুরহাটের আবুল হোসেনকে গ্রেপ্তার করা হয়। সর্বশেষ এই মামলায় গোলাম ফারুক এবং তার স্ত্রীকে গ্রেপ্তার করা হলো।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন


এ সম্পর্কিত খবর

মা-ছেলে হত্যা : তিন আসামির বিচার শুরু

মা-ছেলে হত্যা : তিন আসামির বিচার শুরু

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর কাকরাইলে মা ও ছেলেকে হত্যার ঘটনায় দায়ের করা মামলায় তিনজনের বিরুদ্ধে

বিসিএস ও ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস করতো যারা

বিসিএস ও ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস করতো যারা

স্টাফ রিপোর্টার : ডিজিটাল জালিয়াতি ও প্রেস থেকে প্রশ্নপত্র ফাঁসের সঙ্গে জড়িত মূলহোতাসহ ৪৬ জনকে

অন্যের নামে অ্যাকাউন্টে ফেসবুকে অশ্লীল ছবি, গ্রেপ্তার

অন্যের নামে অ্যাকাউন্টে ফেসবুকে অশ্লীল ছবি, গ্রেপ্তার

সিরাজগঞ্জ সংবাদদাতা:  ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুর থেকে রোকন উদ্দীন (৪০) নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে


ফেনীতে দুই গ্রুপের ‘গোলাগুলিতে’ ডাকাত নিহত

ফেনীতে দুই গ্রুপের ‘গোলাগুলিতে’ ডাকাত নিহত

: ফেনীর ছাগলনাইয়ায় ডাকাত দলের দু’গ্রুপের ‘গোলাগুলিতে’ একজন নিহত হয়েছেন। এ সময় গুলিবিদ্ধ আরও একজনসহ

জাবির ১৭ শিক্ষার্থী বহিষ্কার শ্লীলতাহানী, ছাত্রী নিপীড়ন, মাদকসেবনসহ নানা অভিযোগ

জাবির ১৭ শিক্ষার্থী বহিষ্কার শ্লীলতাহানী, ছাত্রী নিপীড়ন, মাদকসেবনসহ নানা অভিযোগ

 মাদকসেবন, শ্লীলতাহানী, ছাত্রী নিপীড়নসহ নানা অভিযোগে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের  ১৭ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার করেছে  প্রশাসন। গত ১৮

সংসদে কথা বলতে দিতে হবে : জিএম কাদের

সংসদে কথা বলতে দিতে হবে : জিএম কাদের

সংসদের বিরোধীদলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ (জিএম) কাদের বলেছেন, সংসদ প্রাণবন্ত করতে বিরোধী দলকে কথা বলতে


সাংবাদিক গৌতম হত্যা : যাবজ্জীবনপ্রাপ্ত ৪ আসামি খালাস

সাংবাদিক গৌতম হত্যা : যাবজ্জীবনপ্রাপ্ত ৪ আসামি খালাস

সাংবাদিক গৌতম দাস হত্যা মামলায় নিম্ন আদালতের দেয়া নয়জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের মধ্যে পাঁচজনের সাজা বহাল

সার্ক কোটায় সরকারি মেডিকেলে কাশ্মিরের ১৫ ‘ভুয়া মেধাবী’ শিক্ষার্থী

সার্ক কোটায় সরকারি মেডিকেলে কাশ্মিরের ১৫ ‘ভুয়া মেধাবী’ শিক্ষার্থী

২০১৮-২০১৯ শিক্ষাবর্ষে দেশের বিভিন্ন সরকারি মেডিকেল কলেজের এমবিবিএস প্রথম বর্ষে সার্কভুক্ত দেশের মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য

বিদেশে মাদক ব্যবসায় ‘স্মার্ট মেয়েরা’

বিদেশে মাদক ব্যবসায় ‘স্মার্ট মেয়েরা’

বায়িং হাউজে চাকরির নামে চলতো নিয়োগ। প্রাধান্য পেতেন কথিত ‘স্মার্ট মেয়েরা’। নিয়োগের পর তাদের (স্মার্ট



আরো সংবাদ




চট্টগ্রামে চিকিৎসকের লাশ উদ্ধার

চট্টগ্রামে চিকিৎসকের লাশ উদ্ধার

৩১ জানুয়ারী, ২০১৯ ১১:৪৮


বাল্যবিয়ে পড়ানোয় ইমামের কারাদন্ড

বাল্যবিয়ে পড়ানোয় ইমামের কারাদন্ড

৩০ জানুয়ারী, ২০১৯ ১৪:৪০








ব্রেকিং নিউজ