বাংলাদেশ সোমবার 18, June 2018 - ৪, আষাঢ়, ১৪২৫ বাংলা

এমপি শিবলী আর ক্লোজ-আপ তারকা সালমার বিবাহ বিচ্ছেদ

ফুলকি ডেস্ক | প্রকাশিত ২৬ নভেম্বর, ২০১৬ ২১:৫৪:২১

 জনপ্রিয় লোকসঙ্গীত শিল্পী ও ক্লোজআপ ওয়ান তারকা সালমা বেগমের সঙ্গে এমপি শিবলী সাদিকের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে। এ নিয়ে মুখ খুলেছেন তার সাবেক স্বামী দিনাজপুর-৬ আসনের আওয়ামী লীগের এমপি শিবলী সাদিক ও কণ্ঠশিল্পী সালমা। দাম্পত্য কলহের জের ধরেই সংসার ভেঙেছে বলে জানা গেছে। ডিভোর্সের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তারা দু’জনেই। 
সালমার স্বামী দিনাজপুর-৬ আসনের আওয়ামী লীগের এমপি শিবলী সাদিক বলেছেন, সালমার উচ্ছৃঙ্খল জীবনযাপনই বিবাহ বিচ্ছেদের মূল কারণ। তিনি দাবি করেন, সালমার অস্বাভাবিক চলাফেরার কারণেই বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটেছে। গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় টেলিফোনে তিনি বলেন, ‘আমার পরিবার ও বংশ সম্পর্কে আপনাদের হয়তো ধারণা আছে। দিনাজপুরের স্বপ্নপুরী পিকনিক স্পটের সুবাদে অনেকে আমাদের চেনেন। সালমার অস্বাভাবিক চলাফেরার কারণেই বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটেছে। সালমা রাত-বিরাতে বিভিন্ন জায়গায় যায়।
এটিই মূল সমস্যা হিসেবে দেখা দিয়েছে। এটাই আমরা এক্সসেপ্ট করতে পারিনি। বিশেষ করে গত রমজানে সেহরি পার্টি থেকে শুরু করে চার মাস রাগ করে বাসা থেকে চলে গিয়ে বাইরে ছিল। সে চলতি মাসের ২০ তারিখ বাসায় ফিরে টাকা-পয়সা দাবি করে, মোহরানা দাবি করে। এমনকি কাজী সঙ্গে নিয়ে আসে। একপর্যায়ে ২০ লাখ টাকা দাবি করে। এমনকি সে চেক না দিয়ে নগদ টাকা দাবি করে।’ 
সালমাকে গান করতে না দেয়া সম্পর্কে তরুণ এই এমপি বলেন, ‘আমরা চাচ্ছিলাম সে একটা লিমিটেশনের মধ্যে থাকুক। ঢাকায় গ্রোগ্রাম করুক, বড় বড় প্রোগ্রামে অংশ নিক। কিন্তু ওর কথা এটা নয়। ওর কথা হলো সে আমেরিকা বা দেশের বাইরে যাবে, নাটক ও অভিনয় করবে। রাত-বিরাত স্টুডিওতে গিয়ে কাজ করবে। এসব করতে পারিবারিকভাবে আমরা নিষেধ করেছি। এই হলো বিষয়।’ 
মেয়ে কার কাছে থাকবে এ প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, এ বিষয়ে দুজনের মধ্যে চুক্তি হয়েছে। মেয়ে আমার কাছেই থাকবে। তিনি যোগ করেন, মেয়ের টেককেয়ার সে আগেও করতো না বা এর ধারও ধারতো না। তিনি বলেন, সালমার পরিবারের টার্গেট ছিল আসলে অন্য বিষয়ে। তারা টাকা-পয়সা আদায় করতে চেয়েছে। তারা সফলও হয়েছে।
সালমার বাবা-মাকে সম্মান না করা সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘এসব বাজে কথা। ওর বাবা-মা তো মাসের ২৫ দিনই আমার কাছে থাকতো। আমি যদি খারাপ ব্যবহার করতাম তাহলে আমার বাসায় কীভাবে থাকে? মাসের ৫টা দিন শুধু কুষ্টিয়া থাকতো তারা।
সালমার বাবা-মা ভাইবোনকে আমিই টাকা-পয়সা দিতাম। এমনকি আমার সঙ্গে বিয়ে হওয়ার পর সালমার নামে এখন ঢাকায় দুটি ফ্ল্যাট হয়েছে। তাদের গ্রামে দোতলা বাড়ি করে দিয়েছি আমি। বিয়ে হওয়ার আগেও সালমা ইনকাম করতো কিন্তু কিছুই তো করতে পারেনি।’
অপরদিকে সালমা বলেন, ‘কপাল খারাপ, বিশেষ দিনেই আমার জীবনে এমন একটি ঘটনা ঘটল’। উল্লেখ্য, গত ২০ নভেম্বর সালমা ও শিবলী সাদিকের মধ্য ডিভোর্স হয়েছে। কেন ডিভোর্স করলেন এমন প্রশ্নে আবেগতাড়িত হয়ে সালমা বলেন, এ বিষয়ে আমি আসলে স্পিসলেস। শুধু বলবো যে, মরতে মরতে বেঁচে গেছি। এর বেশি এই মুহুর্তে বলা সম্ভব নয় বলে জানান এক সময়ের জনপ্রিয় সঙ্গীত তারকা সালমা।
জানা গেছে, গত ২০ নভেম্বর রাজধানীর ধানমন্ডি এলাকার একটি রেস্তোরাঁয় দুই পরিবারের উপস্থিতিতে তালাকের কার্য সম্পন্ন হয়েছে। তবে গত ৫ দিন বিষয়টি একরকম চাপা ছিল। এসময় সালমাকে মোহরানার ২০ লাখ এবং আনুষাঙ্গিক সকল টাকা পরিশোধ করেছেন তার স্বামী শিবলী সাদিক, এমনও খবর পাওয়া গেছে।
উল্লেখ্য, গত ২০১১ সালের ২৬ জানুয়ারি দিনাজপুরের পিকনিক স্পট স্বপ্নপূরীর স্বত্বাধিকারী শিবলী সাদিকের সঙ্গে বিয়ের পিঁড়িতে বসেন কণ্ঠশিল্পী সালমা। এরপর ২০১৪ সালের ১ জানুয়ারি সালমার প্রথম সন্তান জন্ম নেয়। বিষয়টি নিয়ে সালমার সঙ্গে কথা হলো। খবরটির বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘ঘটনা সত্য। ডিভোর্স হয়ে গেছে’। 
 

বার পঠিত

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন


এ সম্পর্কিত খবর

বিশ্বকাপ ফুটবলে আইএস’এর জঙ্গি হামলার হুমকি

বিশ্বকাপ ফুটবলে আইএস’এর জঙ্গি হামলার হুমকি

সারাবিশ্বের ফুটবল পাগল দর্শকরা যখন গভীর আগ্রহে রাশিয়ায় সমবেত হচ্ছে বা বিভিন্ন দেশের দর্শক টেলিভিশন

বাজেট পাসের আগেই চালের দাম কেজি প্রতি ৫ টাকা বৃদ্ধি

বাজেট পাসের আগেই চালের দাম কেজি প্রতি ৫ টাকা বৃদ্ধি

আসছে ২০১৮-১৯ অর্থবছরের জন্য প্রস্তাবিত বাজেটে চাল আমদানির ওপর ২৮ শতাংশ শুল্ক পুনর্বহাল করা হয়েছে।

সিএমএইচে কেন বিশ্বাস নেই খালেদার : প্রশ্ন কাদেরের

সিএমএইচে কেন বিশ্বাস নেই খালেদার : প্রশ্ন কাদেরের

 কারাগারে অসুস্থ বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে সরকারের পক্ষ থেকে দ্বিতীয় দফায় সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে


ঈদে বড় কোনো হুমকি নেই: ডিএমপি কমিশনার

ঈদে বড় কোনো হুমকি নেই: ডিএমপি কমিশনার

 জামিনে বের হওয়া জঙ্গিদের বিশেষ নজরদারিতে রাখা হচ্ছে বলে জানান ডিএমপি কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া। ঈদকে

মুসার বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১২ জুলাই

মুসার বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১২ জুলাই

শুল্ক ফাঁকি ও সুইস ব্যাংকে টাকা জমা রাখার অস্বচ্ছ হিসাব দাখিলের অভিযোগে ব্যবসায়ী প্রিন্স মুসা

খালেদা জিয়াকে ঈদ শুভেচ্ছা জানাতে জেলগেটে যাবেন বিএনপি নেতারা

খালেদা জিয়াকে ঈদ শুভেচ্ছা জানাতে জেলগেটে যাবেন বিএনপি নেতারা

 দলীয় প্রধান কারাগারে, আর তাই ঈদুল ফিতরের দিনে তাদের নেত্রীকে দেখতে ও শুভেচ্ছা জানাতে জেলগেটে


হাসিনা যে সুযোগ পেয়েছেন, খালেদা কেন পাবেন না?

হাসিনা যে সুযোগ পেয়েছেন, খালেদা কেন পাবেন না?

 বিএনপি’র চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াকে তার পছন্দের হাসপাতালে পাঠাবে না সরকার। অথচ এক সময় শেখ হাসিনা

ভারতের নাক গলানোর অধিকার নেই : ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী

ভারতের নাক গলানোর অধিকার নেই : ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, আমরা এমনিতেই দেশের লোকেরা মনে করি বিএনপি জামায়েত

মাদক নির্মুলে বন্দুক যুদ্ধের নামে মানুষ খুন বন্ধ করার দাবি সুপ্রিম কোর্ট বারের

মাদক নির্মুলে বন্দুক যুদ্ধের নামে মানুষ খুন বন্ধ করার দাবি সুপ্রিম কোর্ট বারের

 মাদক নির্মুলে বন্দুক যুদ্ধের নামে মানুষ খুন বন্ধ করার দাবি জানিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট বার। বৃহস্পতিবার



আরো সংবাদ












ভাইজানের সঙ্গে মিমি!

ভাইজানের সঙ্গে মিমি!

১২ এপ্রিল, ২০১৮ ১৪:৪২


ব্রেকিং নিউজ