উপকারী একটি সবজি বিটরুট। নানা শারীরিক সমস্যার সমাধান রয়েছে এতে। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে এ সময় খাদ্য তালিকায় রাখতে পারেন উপকারী বিট। এর কিছু উপকারিতা সম্পর্কে চলুন জেনে নিই- 

রক্তসঞ্চালন স্বাভাবিক রাখে

বিটের রসে রসে প্রাকৃতিক যৌগ নাইট্রেট। এটি শরীরে প্রবেশ করে নাইট্রিক অক্সাইডে পরিণত হয়। যা আমদের দেহের রক্তসঞ্চালন প্রক্রিয়া স্বাভাবিক রাখে। 

আরো পড়ুন : শুধু বয়স্ক নয়, তরুণরাও মারাত্মক আক্রান্ত হতে পারে

রক্তচাপ রাখে নিয়ন্ত্রণে 

রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে বিট। কদিন পর পর বিটের রস পান করলে রক্তচাপ আর বাড়ে না। 

অ্যানার্জি বাড়ায়

শারীরিক শক্তি বৃদ্ধিতে এর জুড়ি নেই। রোজ এক গ্লাস বিটের রস পান করলে দ্রুত অ্যানার্জি পাবেন আপনি। 

আরো পড়ুন : রোগ প্রতিরোধে সবচেয়ে বেশি শক্তি ও পুষ্টি মিলবে এসব খাবারে

ক্যানসারের ঝুঁকি কমায়

বিটের রস অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট পূর্ণ একটি পানীয়, যা বিভিন্ন ধরনের ক্যানসার হওয়ার সম্ভাবনাকে অনেকাংশে প্রতিহত করতে পারে। এতে থাকা ভিটামিন সি বিটালাইন্স ক্যানসার সৃষ্টিকারী ফ্রি র‍্যাডিকেলকে ধ্বংস করতে সাহায্য করে। 

অ্যানিমিয়ার বিরুদ্ধে লড়ে 

সপ্তাহে তিন থেকে চার দিন এক গ্লাস বিটের রস পান করুন। এটি অ্যানিমিয়ার সঙ্গে লড়তে সাহায্য করে। 

সুস্থতা নিশ্চিতে খাদ্যতালিকায় রাখুন সবজিটি।