বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ করে দেশের ১৭ কোটি মানুষকে নিরাপদ ও সুস্থ রাখতে সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালাচ্ছে সরকার। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (হু) প্রণীত গাইডলাইন অনুসরণ করে সে আলোকে দেশের প্রেক্ষাপটে রোগতত্ত্ববিদ ও স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞসহ অভিজ্ঞ সবার মতামতের ভিত্তিতে ১৭টি গাইডলাইন প্রণয়ন করেছে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়।

বর্তমানে এ গাইডলাইন অনুসরণ করে চলছে করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকানোর কার্যক্রম।

প্রণীত গাইডলাইনগুলো হলো-
১। করোনা আক্রান্ত রোগীর হাসপাতাল ব্যবস্থাপনার নির্দেশনা বা স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর।

২। করোনা নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে ব্যক্তিগত সুরক্ষা সামগ্রীর যুক্তিসংগত ব্যবহার।

৩। করোনা জীবাণুমুক্তকরণ এবং পরিবেশগত সংক্রমণ রোধ সংক্রান্ত নির্দেশনা বা স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর।

৪। বাড়িতে পরিচর্যার নির্দেশনা: করোনা আক্রান্ত সন্দেহজনক রোগী, যার মৃদু সংক্রমণ রয়েছে এবং করোনা আক্রান্ত রোগী যার হাসপাতালে থাকার প্রয়োজন নেই তাদের জন্য প্রযোজ্য।

৫। বিশ্বজুড়ে প্রতিরোধে গর্ভবতী মা ও পরিবারের করণীয়।

৬। করোনা সংক্রান্ত কুসংস্কার দূরীকরণ।

৭। করোনাভাইরাস সংক্রমণ : মানসিক চাপমুক্ত থাকতে কী করবেন।

৮। করোনাভাইরাস সংক্রমণ: শিশুদের মানসিক চাপমুক্ত রাখতে কী করবেন।

৯। করোনা রোগে মৃত ব্যক্তির মরদেহ নিরাপদভাবে দাফন/সৎকার/ ব্যবস্থাপনার নির্দেশনা বা স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর।

১০। করোনাভাইরাস রোগ/কোভিড-১৯ আক্রান্ত ব্যক্তিদের সংস্পর্শে আসা সন্দেহে থাকা ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টাইন সম্পর্কে জ্ঞাতব্য।

১১। হাসপাতাল ও বিমানবন্দরে কোভিড-১৯ এর বর্জ্য ব্যবস্থাপনার গাইডলাইন তৈরি করা হয়েছে।

১২। করোনা মোকাবিলায় জীবাণুনাশক দ্রবণ তৈরির নিয়ম।

১৩। করোনা কেইস ডেফিনেশন।

১৪। কোভিড-১৯ এবং সামাজিক কুসংস্কার বা সোশ্যাল স্টিগমা।

১৫। করোনা রোগী শনাক্তকরণের পরীক্ষায় অনুসরণীয় বিষয়সমূহ।

১৬। করোনার জন্য কর্মক্ষেত্র প্রস্তুতকরণ।

১৭। হাসপাতালে করোনা সংক্রান্ত বর্জ্য পরিচালনার নিদের্শনা বা স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর।

এই গাইডলাইনের বিস্তারিত মিলবে স্বাস্থ্য অধিদফতরের ওয়েবসাইটে। পড়তে ক্লিক করুন

চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস এখন বৈশ্বিক মহামারি। সবশেষ হিসাবে, করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় সাড়ে পাঁচ লাখ। মারা গেছেন সাড়ে ২৪ হাজারেরও বেশি মানুষ। বাংলাদেশে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৮ জন, মারা গেছেন ৫ জন।