প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯ এর সংক্রমণ ঠেকাতে ১০ দিনের জন্য দেশের রাইড শেয়ারিং সেবা বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৭ মার্চ) থেকে শুরু করে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত এই সেবা বন্ধ থাকবে।

সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) থেকে নির্দেশনা পাওয়ার পর থেকে দেশের রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠানগুলো এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার থেকেই সহজ ও পাঠাও নিজেদের রাইড শেয়ারিং সেবা বন্ধের উদ্যোগ নিয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত উবারের সিদ্ধান্ত জানা যায়নি। এ বিষয়ে বাংলাদেশের রাইড শেয়ারিং সেবা প্রতিষ্ঠান উবারের গণসংযোগ প্রতিষ্ঠান বেঞ্চমার্ক পিআর কোনো তথ্য জানাতে পারেনি।

তবে সহজ রাইডের প্রতিষ্ঠাতা ব্যবস্থাপনা পরিচালক মালিহা এম কাদির জানান, মানুষকে বাসায় রাখতে হবে- এটা সরকারের ভালো একটি সিদ্ধান্ত। সরকারের এই সিদ্ধান্তে আমরা খুশি। করোনা ভাইরাস এখন আমাদের জাতীয় ইস্যু। এজন্য এই সিদ্ধান্তকে সবার সম্মান জানানো উচিত।

অন্যদিকে রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান পাঠাওয়ের পরিচালক (বিপণন) সৈয়দা নাবিলা মাহবুব বলেন, ‘২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল অবধি আমাদের রাইড শেয়ারিং সেবা বন্ধ থাকবে। আমরা চাই, মানুষ যেন কম বের হয়।’

তিনি আরও বলেন, রাইড শেয়ারিং সেবা বন্ধ থাকলেও তাদের পুনরায় চালু করা ‘টঙ’ সেবা চালু থাকবে। তবে ইজিয়ার, ওভাই-ওবোনসহ অন্যান্য রাইড শেয়ারিং বন্ধ থাকবে বলেও জানা গেছে।