করোনাভাইরাসকে জয় করে স্বাভাবিক ভাবেই দিন কাটানো শুরু করেছিলেন চীনের জনগণ। ২ মাস বন্ধ রাখার পর খুলে দেওয়া হচ্ছিলো চীনের প্রায় ৭০ হাজার সিনেমা হল। কয়েক সপ্তাহ থেকে চীনের ৬০০ সিনেমা হল চলছিলো। ধারাবাহিক ভাবে হল খোলার সিদ্ধান্ত হয়েছিলো।

ভ্যানিটি ফেয়ার সূত্রে জানা গেছে, আবারও দেশে করোনা পড়বে এই আশঙ্কায় চালু হওয়া সিনেমাহলগুলো বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে বেইজিং ফিল্ম ব্যুরো। করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ধাক্কা সামলাতেই চীনের সব সিনেমা হল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

২৭ মার্চ চীনে থ্রিডি আকারে মুক্তি পাওয়ার কথা ছিলো হলিউডের বিখ্যাত ‘হ্যারি পটার’ সিনেমাটি। চীনের রাস্তার ছবিটির বিলবোর্ডও ঝোলানো হয়েছিলো। কিন্তু বিনোদন নেওয়ার আগেই প্রাণ বাঁচানোর তাড়া। তাই আপাতত সেই ছবির মুক্তি বন্ধ।

উল্লেখ্য, গত ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের উহানে প্রথম করোনা ভাইরাস পাওয়া যায়। চীন থেকেই এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে সারা বিশ্বে। চীনে এখন পর্যন্ত করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৮১ হাজার ৩৯৪ এবং মারা গেছে ৩ হাজার ২৯৫ জন। অপরদিকে, চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ৭৪ হাজার ৯৭১ জন।