‘সব কিছু স্বাভাবিকই ছিল, হঠাৎ লক্ষণ প্রকাশ পেল, বাড়ল খুবই দ্রুত। আমরা এখনও স্তম্ভিত। এটা খুবই জটিল এবং কঠিন সময়’-কথাগুলো তুরস্কের কিংবদন্তি ফুটবলার রুস্তো রেকবারের স্ত্রীর। শনিবার হঠাৎই করোনা পজিটিভ হিসেবে ধরা পড়েছেন ৪৬ বছর বয়সী সাবেক এই গোলরক্ষক, দ্রুত তাকে নিয়ে যাওয়া হয় হাসপাতালে।

স্বামীর এই অসুস্থতার খবর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে জানিয়েছেন স্ত্রী ইসিল। তিনি বলেন, ‘আমি, আমার মেয়ে আর ছেলে করোনা টেস্টে নেগেটিভ। কিন্তু আমার স্বামী পজিটিভ হিসেবে ধরা পড়েছেন।’

পজিটিভ হওয়ার পরই তাকে হাসপাতালের আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে। করোনার সংক্রামক লক্ষণে রীতিমত বিচলিত রেকবারের পরিবার।

স্ত্রী ইসিল বলেন, ‘সত্যি বলতে আমি আপনাদের ভালো খবর দিতে চেয়েছিলাম। কিন্তু দুঃখের বিষয় হলো আমার স্বামী কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে আছেন। অথচ আমরা তাকে দেখতে পারছি না। এটা খুবই কঠিন সময়।’

রেকটর তুরস্কের হয়ে সবচেয়ে বেশি (১২৪টি) ম্যাচ খেলেছেন। জাতীয় দলের হয়ে খেলেছেন ২০০২ বিশ্বকাপও, যেখানে তৃতীয় স্থান অধিকার করে তার দল।

তুর্কি ক্লাব ফেনারবাহসে, অ্যান্তালিওস্পোর এবং বেসিকটাসের হয়ে খেলেছেন। পাঁচবার জিতেছেন তুর্কি সুপার লিগ। ২০০৩ সালে ফেনারবাহসে ছেড়ে বার্সেলোনাতে গিয়েছিলেন এই গোলরক্ষক। তবে পরের বছরই ইস্তাম্বুলের ক্লাবে ফিরে আসেন। ২০১২ সালে গ্লাভসজোড়া তুলে রাখেন তিনি।