স্টাফ রিপোর্টার : দিনে দেড় হাজারের বেশি করোনাভাইরাসের নমুনা টেস্ট করতে সক্ষম সাভারে অবস্থিত বাংলাদেশ প্রাণিসম্পদ গবেষণা ইনস্টিটিউট। সেখানে রিয়েল টাইম পিসিআর প্রযুক্তির অত্যাধুনিক দুটি ল্যাবে প্রতি তিন ঘণ্টায় ১৯২টি নমুনা পরীক্ষা সম্ভব। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের এই সময়ে দেশব্যাপী নমুনা পরীক্ষার স্বল্পতা কাটাতে বাংলাদেশ প্রাণিসম্পদ গবেষণা ইনস্টিটিউট বড় ভূমিকা রাখতে পারে। মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম জানিয়েছেন, বিষয়টি সরকারের যথাযথ বিভাগকে এরই মধ্যে জানানো হয়েছে। নির্দেশনা পেলেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


বাংলাদেশ প্রাণিসম্পদ গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. নাথুরাম সরকার জানিয়েছেন, দেশের অন্যতম বৃহৎ ও আধুনিক এই ল্যাবে বায়োলজিক্যাল নিরাপত্তার সব ধরনের সুবিধা রয়েছে। ব্যক্তিগত নিরাপত্তা সরঞ্জাম পেলে যে কোনো সময় থেকেই এই দুই ল্যাবে পরীক্ষা শুরু করা সম্ভব। কর্মীদের যথাযথ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে সরকার চাইলে এই ল্যাব ব্যবহার করতে পারে। অন্যদিকে, ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে করোনাভাইরাস পরীক্ষা কার্যক্রম শুরু হয়েছে। ঢাকার বাইরে শুরু হয়েছে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে।

দু-এক দিনের মধ্যে শুরু হবে রাজশাহী ও রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। ইতিমধ্যেই আইইডিসিআর, আইপিএইচ, ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব ল্যাবরেটরি মেডিসিন, আইসিডিডিআর’বি, রাজধানীর শিশু হাসপাতাল, চিলড্রেন হেলথ রিসার্চ ফাউন্ডেশন এবং আইদেশ নামের একটি বিজ্ঞানভিত্তিক অলাভজনক স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠান পিসিআর টেস্ট করছে। চট্টগ্রামে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল মেডিসিন অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজ হাসপাতালেও চলছে করোনা ভাইরাস পরীক্ষা।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এ কে এম নাসির উদ্দিন জানান, ঢাকা মেডিকেল কলেজের ভাইরোলজি বিভাগে রোগীদের গতকাল থেকে করোনা পরীক্ষা করা শুরু হয়েছে। বহির্বিভাগ, জরুরি বিভাগ ও হাসপাতালে ভর্তি থাকা রোগীরাই এ সেবা পাবেন। কলেজের চারতলায় ভাইরোলজিস্ট ও জীবাণু বিশেষজ্ঞদের নিয়ে টিম গঠন করে এ পরীক্ষা কার্যক্রম চালু করা হয়েছে। স্বশরীরে হাসপাতালে এসে পরীক্ষা করাতে হবে। সাধারণ মানুষ বিনামূল্যে করোনা পরীক্ষা করাতে পারবেন।

তিনি বলেন, পরীক্ষায় কোনো রোগীর যদি করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে, তাকে ঢাকা মেডিকেল ছাড়া সরকারের বরাদ্দ করা হাসপাতালগুলোতে করোনাভাইরাসের চিকিৎসার জন্য পাঠানো হচ্ছে। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর চিত্তরঞ্জন দেবনাথ জানিয়েছেন, ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগে ‘পিসিআর’ ল্যাব গতকাল চালু হয়েছে। শুরুর দিনই চারজনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হচ্ছে। চারজনের মধ্যে একজন টাঙ্গাইল জেলার মধুপুরে জ্বর-সর্দি ও কাশি নিয়ে মারা যাওয়া রোগী, দুজন এসকে হাসপাতালের রোগী এবং আরেকজনের নমুনা সংগ্রহ করা হয় কিশোরগঞ্জ জেলা সদর থেকে। বৃহস্পতিবার রিপোর্টের ফলাফল ঢাকা আইইডিসিআরের মাধ্যমে জানানো হবে। পরীক্ষা কার্যক্রমের প্রস্তুতিতে থাকা রাজশাহী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. মো. নওশাদ আলী বলেন, ল্যাবে এক দিনে সর্বোচ্চ ৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করা যাবে।