স্টাফ রিপোর্টার : বিশ^ব্যাপী করোনা ভাইরাসের প্রভাবে সাভারে বিপর্যস্ত অসহায় মানুষের পাশে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে পৌরসভার বক্তারপুর এলাকায় প্রায় ৩শ হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।
আজ শনিবার সকালে পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ডের বক্তারপুর, কোটবাড়ি ও পোড়াবাড়ি এলাকায় দুস্থদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে সাভার থানা ছাত্রলীগের সাবেক সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক মোঃ মোক্তার হোসেন এ খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন। এসময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাভার পৌরসভা ২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম মানিক মোল্লা। এছাড়া আরও উপস্থিত ছিলেন, সাভার পৌর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রাশেদ খান মেনন, মায়া ওয়েল মিলের কর্ণধার মিয়াজ, সাভার পৌর ২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোঃ আমির হোসেন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক মনির হোসেন প্রমুখ।

সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সমাজের গরিব, অসহায়, অসচ্ছল ও নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য খাদ্য সামগ্রী হিসেবে চাল, ডাল, তেল, আলু, লবণ, পিয়াজ, ডিমসহ শুকনো খাবার দেওয়া হয়। আর করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক, হ্যান্ড গ্লাভস, হ্যান্ড স্যানিটাইজার, হ্যান্ড ওয়াস, সাবান প্রদান করা হয়। খাদ্য সামগ্রী নিতে আসা এক গৃহকর্মী শিউলি জানান, ‘ আমি অন্যের বাসায় কাজ করে সংসার চালিয়ে এসেছি। কিন্তু করোনাভাইরাসের কারণে এখন কাজ বন্ধ। তাই এখন সংসার চালানোর মতো কোন ব্যবস্থা নেই। আজকের এই খাদ্যসামগ্রী দিয়ে যতদিন সংসার চালানো যায়।’
চা দোকানদার জাহিদুল বলেন, ‘গত এক সপ্তাহ ধরে দোকান বন্ধ৷ কোন অর্থ উপার্জন হচ্ছে না। এতে সংসার চালাতে পারছি না। আজকে এই খাদ্যসামগ্রী পেয়ে অনেক উপকার হয়েছে।’


সাভার থানা ছাত্রলীগের সাবেক সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক মোক্তার হোসেন বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনা নির্দেশনায় আর্তমানবতায় পাশে দাড়িয়েছি আমরা। বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসের এই দুঃসময়ে নিজেদের সমর্থ অনুযায়ী নিম্ন আয় ও দিনমজুরদের পাশে দাড়াচ্ছি। আমি নিজস্ব অর্থায়ন ও প্রচেষ্টায় এ কর্মসূচি হাতে নিয়েছি।’
তিনি আরও বলেন, ‘করোনা ভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন ছুটি থাকায় আমাদের সমাজের অনেকেরই আয়ের উৎস বন্ধ হয়ে গেছে। এমন অবস্থায় আমরা প্রায় ৩০০ পরিবারের জন্য খাদ্য সামগ্রীর ব্যবস্থা করেছি। মানবিক কারণে সমাজের বিত্তবানদেরও নিম্ম আয়ের মানুষদের জন্য সাহায্যের হাত বাড়ানো উচিৎ।’