করোনাভাইরাস আতঙ্কে দিনগুলো পার হচ্ছে ঘরে থেকেই। এই মুহূর্তে ঘরে থাকাটাই একমাত্র সমাধান। কিন্তু সবার যে ঘরে বসে থাকলে চলে না। এমন দিনেও নিবেদিত প্রাণ হয়ে আপনার প্রয়োজনে ভয় উপেক্ষা করে হাজির হচ্ছেন যেসব ডেলিভারি ম্যান, তাদের প্রতি কৃতজ্ঞ থাকুন। তারা না থাকলে প্রয়োজনের সময় আপনি খাদ্য সামগ্রীও হয়তো পেতেন না।

হোম ডেলিভারির কারণে করোনাভাইরাস ছড়ায়, এই ভুল ধারণা ভেঙে বেরিয়ে আসুন। হোম ডেলিভারি ও ভাইরাসের সংক্রমণ নিয়ে যে তিনটি ধারণা আপনার এখনই ভেঙে ফেলা উচিত, সেগুলো হলো-

১. খাবারের মাধ্যমে করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে, এমন ধারণা বেশিরভাগেরই। অথচ এর কোনো প্রমাণ এখনও পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। খাবার আমরা শ্বাসগ্রন্থির মাধ্যমে প্রবেশ করাই না। কিন্তু করোনাভাইরাস আমাদের শ্বাসগ্রন্থিতে আঘাত করে। আমাদের স্টমাকের উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন অ্যাসিড যে কোনো ভাইরাসকেই ধ্বংস করে দিতে পারে।।

২. আপনি যদি মনে করেন যে ডেলিভারি ম্যানের কাছ থেকে খাবারের প্যাকেট নেওয়া এবং তাকে টাকা দেওয়ার মাধ্যমে আপনি সামাজিক দূরত্ব রক্ষা করতে পারবেন না। তাহলে অনলাইনে পেমেন্ট করুন। আর ডেলিভারি ম্যানকে বলুন দরজার বাইরেই খাবারের প্যাকেট রেখে যেতে। এরপর খাবারের প্যাকেটটা সোজা রান্নাঘরের সিংকে নিয়ে যান। প্যাকেট খুলে খাবার বের করে ডিশে রেখে দিন আর সঙ্গে সঙ্গে প্যাকেটটি ফেলে দিন। পরে সিংক ভালো করে ধুয়ে নিতে ভুলবেন না।

এরপর খাবারের ডিশটা মাইক্রোওভেনে ১-২ মিনিট গরম করে নিন। আর অবশ্যই খাওয়ার আগে ও পরে সাবান দিয়ে ভালো করে হাত ধোবেন।

৩. অনেকেই মনে করেন আমিষ খাবার থেকে করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে। এটাও একেবারে ভুল ধারণা। খাবার থেকে করোনাভাইরাস ছড়ায় না বলে জানিয়ে দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তা মাছ, মাংস, ডিম যাই হোক না কেন।

তাই আপনার পছন্দের খাবার মন খুলে অর্ডার করুন। করোনাভাইরাসের ভয় দূরে সরিয়ে পুষ্টিকর খাবার গ্রহণ করুন। শুধু একটু সাবধানতা আর সতর্কতা অবলম্বন করলেই হবে।