গাজীপুর প্রতিনিধি : গাজীপুরের কালিয়াকৈরে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হকের গানম্যানের গুলিতে এক যুবক নিহত হয়েছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার কুতুবদিয়া গ্রামে এ ঘটনায় আরেকজন আহত হয়েছেন বলে কালিয়াকৈর থানার ওসি আলমগীর হোসেন মজুমদার জানান।

নিহত মো. শহিদ (৩০) কালিয়াকৈর উপজেলার সীমান্তবর্তী টাঙ্গাইলের মির্জাপুরের আজগানা গ্রামের সবুর উদ্দিনের ছেলে। আর গুলিবিদ্ধ মহিম উদ্দিন (৩২) একই এলাকার আবুল মাজেদের ছেলে।

মন্ত্রীর গানম্যান পুলিশের এএসআই কিশোর কুমার (৩৫) কালিয়াকৈরের কুতুবদিয়া গ্রামের নারায়ণ কুমারের ছেলে। কিশোর ও হতাহতরা বন্ধু বলে পুলিশ জানিয়েছে।

আরও পড়ুন >> গাজীপুর-ময়মনসিংহ ও কেরানীগঞ্জে করোনা সংক্রমণ বাড়ছে

কালিয়াকৈর থানার ওসি আলমগীর হোসেন মজুমদার সাংবাদিকদের বলেন, মন্ত্রীর গানম্যান কিশোর ও হতাহতরা পরস্পর বন্ধু। প্রায়ই তারা একসঙ্গে আড্ডা দিতেন এবং নেশা করতেন। বৃহস্পতিবার রাত পৌনে ১০টার দিকে কুতুবদিয়ায় স্থানীয় একটি পতিত জমিতে বসে তারা আড্ডা দেন এবং নেশা করেন।

“ধারণা করা হচ্ছে, পূর্ব পরিকল্পিতভাবে অথবা নেশাগ্রস্ত অবস্থায় কিশোর নিজের কাছে থাকা পিস্তল দিয়ে শহিদ ও মঈনকে গুলি করেন। এতে শহিদের বুকের ডান পাশে গুলি লাগে এবং ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। মঈনের পেটের এক পাশে গুলি লাগে।”

গুলির শব্দ পেয়ে এলাকাবাসী ছুটে আসলে কিশোর দৌড়ে পালিয়ে যান বলে ওসি জানান।

ওসি জানান, খবর পেয়ে কালিয়াকৈর থানা পুলিশ আহত মহিমকে উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। শহিদের লাশ উদ্ধার করে কালিয়াকৈর থানায় নিয়ে রাখা হয়।

ওসি আলমগীর হোসেন মজুমদার জানান, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হকের গানম্যান কিশোর পলাতক। তাকে গ্রেপ্তার করতে অভিযান চলছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে নেশাগ্রস্ত হয়ে বা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে তাকে হত্যা করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত চলছে।

এ ব্যাপারে কথা বলতে মন্ত্রী গাজীপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য আ ক ম মোজাম্মেল হকের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।