স্টাফ রিপোটার : সাভারের বিরুলিয়ায় অপহরনের পর ছয় বছরের শিশু মেহেদী হাসান হত্যাকান্ডের ঘটনায় অপহরনকারী ভাই-বোনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ।

বুধবার (১৪ অক্টোবর) দুপুরে গ্রেপ্তারকৃতদের সাভার মডেল থানা থেকে আদালতে পাঠানো হয়। এর আগে মঙ্গলবার (১৩ অক্টোবর) দিবাগত রাতে অপহরণের দুই দিন পর সাভারের বিরুলিয়া এলাকা থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে সাভার মডেল থানা পুলিশ। পরে মরদেহটি ময়না তদন্তের জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠায়।

পুলিশ জানায়, শিশু মেহেদী হাসান তার গোলাম কবীর ও মা পারুল বেগমের সাথে সাভারের বিরুলিয়া ইউনিয়নের কাকাবো এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতো। গত ১২ অক্টোবর প্রতিবেশী জসিম ও আনিকা দুই ভাই বোন মিলে শিশুটিকে কৌশল অপহরণ করে। এবং শিশুটির বাবা-মার কাছে মুঠোফোনে বিকাশের মাধ্যমে পঞ্চাশ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। পরে শিশুটির বাবা-মা পনেরো হাজার টাকা বিকাশের মাধ্যমে অপহরণকারীদের পাঠান। তবে মুক্তিপণের বাকি টাকা দিতে না পারায় অপহরণকারীরা শিশুটিকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে এবং মরদেহটি স্কুল ব্যাগে ভরে বিরুলিয়ার পার্শবর্তী একটি জঙ্গলে ফেলে যায়।

এ ঘটনায় পুলিশ অপহরণকারী জসিম ও আনিকাকে আটক করেছে। আটককৃতদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের পর আজ দুপুরে তাদের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।