রাজশাহী সংবাদদাতা : রাজশাহীতে মদপানে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। পুলিশ ধারণা করছে, অতিরিক্ত মদপানে বিষক্রিয়ায় তাদের মৃত্যু হয়েছে। অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন আরও দুজন।

শুক্রবার (১ জানুয়ারি) দিবাগত গভীর রাত থেকে শনিবার ভোর পর্যন্ত রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তারা মারা যান।শুক্রবার রাতে নগরীর হোসনীগঞ্জ এলাকায় মদপান করেন তারা। এরপর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাদের হাসপাতালে নেয়া হয়।

মারা যাওয়া ওই তিন ব্যক্তি হলেন- নগরীর হোসনীগঞ্জ এলাকার আইনুল ইসলামের ছেলে ফয়সাল (২৮), জেলার বাগমারা উপজেলার শান্তাপাড়া এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে সজল (২৫) এবং নগরীর বাকির মোড় এলাকার উত্তমের ছেলে সাগর (২৫)।

এদের মধ্যে ফয়সাল মারা গেছেন শুক্রবার দিবাগত রাত ২টার দিকে। অন্য দুজন শনিবার (২ জানুয়ারি) ভোরে মারা যান।

চিকিৎসাধীন দুজন হলেন- নগরীর হেতমখাঁ এলাকার মৃত লুৎফর রহমানের ছেলে তুহিন (২৬) ও একই এলাকার হাবিবের ছেলে কলপ (২২)।

সঙ্কটাপন্ন অবস্থায় হাসপাতালের ১৭ নম্বর ওয়ার্ডে তারা চিকিৎসাধীন। এই ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ওই তিনজন মারা যান।

নগরীর রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, শুক্রবার রাত নয়টা থেকে ১০টার মধ্যে এই পাঁচজন মদপান করেন।

অসুস্থ হয়ে পড়লে রাতেই তাদের রামেক হাসপাতালে নেয়া হয়। এর মধ্যে গভীর রাতেই মারা যান ফয়সাল। গোপনে তার মরদেহ হাসপাতাল থেকে নিয়ে যান স্বজনরা। শনিবার ভোরে সজল ও সাগর মারা গেছেন। তাদের মরদেহ মর্গে নেয়া হয়েছে।

ওসি আরও বলেন, ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর কারণ যানা যাবে। তবে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, অতিরিক্ত মদপানে বিষক্রিয়ায় তারা মারা গেছেন। এই ঘটনায় আরও কয়েকজনের অসুস্থ হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। তবে তারা এখনো হাসপাতালে আসেননি। এ নিয়ে পুলিশ আইনত ব্যবস্থা নিচ্ছে।