ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে বাংলাদেশের ভরাডুবি কিছুতেই মানতে পারছেন না বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। গতকাল ঢাকা টেস্ট শেষে ক্ষুব্ধ হয়ে তিনি গণমাধ্যমের কাছে দলের কড়া সমালোচনা করেন। সঙ্গে জানান টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুল হক ও কোচ রাসেল ডমিঙ্গোকে দলের বাজে পারফরম্যান্সের জন্য জবাবদিহি করতে হবে। ঢাকা টেস্ট হারের ২৪ ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও এখনও ক্ষত শুকায়নি বোর্ড সভাপতির মনে।

সোমবার কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন নিতে গিয়ে দল নিয়ে আরও একবার হতাশা প্রকাশ করলেন নাজমুল, ‘হেরে গেলে মেজাজ খারাপ হয়। আপনাদেরও খারাপ লাগে, আমারও খারাপ লাগে। গতকাল ছিল রাগের কথা। আমাদের বিশ্বমানের খেলোয়াড় আছে। আমাদের উন্নতি করতে হবে, এ উপলব্ধিটা আসতে হবে।’

ক্রিকেটারদের মানসিকতায় পরিবর্তন আনার কথা জানিয়ে বোর্ড প্রধান যোগ করেন, ‘আমাদের মানসিকতায় বড় পরিবর্তন আনতে হবে। স্পিনার ছাড়া খেলতে পারবো না- এ চিন্তা থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। ব্যাটসম্যানদের শট নির্বাচন নিয়ে ভাবতে হবে। আমরা যেভাবে আউট হয়েছি, এ শটে কেউ আউট হয় না। পরিকল্পনা ও কৌশলে পরিবর্তন আনতে হবে। দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে।’

ভ্যাকসিন নেওয়ার পর বোর্ড সভাপতি জানান, নিউ জিল্যান্ড সফরে পরিকল্পনায় থাকা ক্রিকেটারদের মধ্যে অর্ধসংখ্যককে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। বাকিরা সিদ্ধান্তহীনতায় আছেন। করোনা ভ্যাকসিন নেওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করলে বাকিদের দুই-একদিনের ভেতরে দেওয়া হবে।